গণমত

ফেসটা আমার বডিটা কার?: পরী মনি

0Shares

সরি টু সে (দুঃখের সঙ্গে বলছি), বেশির ভাগ সিনেমা মুক্তির সময় সিনেমার পোস্টার ডিরেক্টরের ফেসবুক ওয়ালে দেখে ডিরেক্টরকে আমার কল করতে হয়। যেখানে আমার শুধু ফেসকাটটাই ঠিক থাকে আর বডি পার্টস নিজেই চিনতে পারি না। তাদের ইচ্ছামতো অঙ্গ সোজা করে নেন তারা। পোস্টারে পোস্টার ডিজাইনারের নাম থাকে না। এ সময়ের জনপ্রিয় ঢালিউড অভিনেত্রী পরী মনি সিনেমার পোস্টার নিয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে এমন মন্তব্য করেন। আজ বৃহস্পতিবার ভোরে নিজের ভেরিভাইড ফেসবুক পাতায় এ বিষয়ে বিস্তারিত লেখেন এই নায়িকা।

পরী মনি অভিযোগের সুরে আরও লিখেন, কি করে থাকবে ওই ডিজাইন তো একা করে না। ১০০ জন মিলে করলে তো আর ১০০ জনের নাম পোস্টারে ধরবে না। ওকে, এখন থেকে তাহলে ছবি শুরুর আগে পোস্টার শ্যুট হবে। যেটা বাংলাদেশ ছাড়া প্রায় সব ফিল্মে হয়। আবার কোন ডিরেক্টর ক্ষেপে যান কে জানে। বয়কট নিয়ম তো এখন। বাই দ্য ওয়ে (যাই হোক), আমি কোনো ডিরেক্টরকে অসম্মান করে বা কষ্ট দিয়ে কিচ্ছু বলিনি। আমি আমার অধিকার থেকে বলছি, কারণ ছবিটা আমারও ছবি। একজন ডিরেক্টর একজন প্রডিউসার যেমন চায় তার ছবিটা ভালো হোক, ভালো চলুক, ঠিক আমিও সেটাই চাই। সো, তফাতটা কোথায়? তফাত হলো দর্শকের চাহিদা, রুচিবোধের দৌড়ের সাথে তাদেরও সমান তালে দৌড়াতে হবে।

আমি একজন দর্শক হিসেবে যদি বলি তাহলে, কেবল একটা স্টেজের দর্শক মাথায় রেখে পোস্টার না করে একটা ভালো গল্পের ওই গল্পকে মাথায় নিয়ে পোস্টার করেন। ছবি দেখার দায়িত্ব দর্শকের ওপর ছেড়ে দিতে পারবেন তখন। আপনি শুধু সুন্দর একটা ছবি বানানোর দায়িত্বটা নিন প্লিজ। আর যদি একান্তই আপনার দর্শকের চিন্তা করতেই হয়, তো নিজের ঘর থেকে শুরু করুন।

Click to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Most Popular

To Top